রাজধানীর পুরান ঢাকার মোগলটুলির একটি স্কুলের নাম পরিবর্তনেরর জন্য প্রতিবাদে এলাকায় বিক্ষোভ করে বিএনপির নেতা-কর্মীরা। বিক্ষোভের একসময় তারা সেই স্কুলটিন নতুন নামে কালি লেপটে দেন।

আজ রোববার দুপুরের সময় মোগলটুলি এলাকায় বিএনপির নেতা-কর্মীরা এই প্রতিবাদী বিক্ষোভ করেন।

তবে দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের সর্বোচ্চ ফোরাম পূরন করার পরেই স্কুলটির নাম পরিবর্তন করা হয়।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, আজকে দুপুর পৌনে ১২ টার দিকে রাস্তায় বিএনপি নেতা-কর্মীরা বিক্ষোভে নেমে পরে। পরে  বিক্ষোভেটি মিছিলে পাল্টে যায়। বিএনপির নেতা-কর্মীরা স্কুলটির প্রধান গেটের সামনে দাড়িয়ে মিছিল করেন।

এক সময় কিছু যুবক স্কুলের প্রধান ফটতে থাকা নতুন নামে কালি লেপটে দেন। এ সময় নেতা-কর্মীরা স্কুলের নাম পরিবর্তনের বিরুদ্ধে নানা স্লোগান গায়।

বিএনপির নেতা-কর্মীরা যখন স্কুলের নামের ওপর কালি মাখিয়ে দিচ্ছিলেন, তখন পাশেই পুলিশের কয়েকজন সদস্য দাড়িয়ে ছিলেন।মিছিল করার পরে নেতা-কর্মীরা সংক্ষিপ্ত সমাবেশ করেন।

স্কুলটি জিয়াউর রহমানের নামে করা ছিলো।  তার নামে স্কুলটি করার জন্যই এলাকার মানুষ ফুঁসে উঠেছিলো। তাকে নিয়েই আজকের এই প্রতিবাদ।

ইতিহাসের খাতায় যা লেখা হয়েছে, নামফলক পরিবর্তন করে তা পরিবর্তন করা যাবে না।

উপস্তিত সভাপতি হাবিব-উন-নবী  বলেন, ‘আজকে থেকে প্রতিবাদ শুরু হলো। এখন থেকে চলবে। যেখানেই অন্যায়ভাবে নামফলক পরিবর্তন করা হবে, সেখানেই প্রতিবাদ-প্রতিরোধ গড়ে তোলা হবে।

জিয়াউর রহমানের নামে স্কুলটির নাম করার পরেও স্কুলটির নাম ফলকে এখনো ‘শহীদ প্রেসিডেন্ট উচ্চবিদ্যালয়’ নামের ফলক আছে। এই ফলকে লেখা ছিলো, ২০০৬ সালের ২৫ মার্চ স্কুলটির উদ্বোধন করা হয়েছে।

 

আমাদের ফেইসবুক Link :  ট্রাস্ট নিউজ ২৪

By Desk