দিনাজপুরে গ্রাহকের টাকা আত্মসাতের অভিযোগে আবু হায়াত আল মাহমুদ (৫০) নামে এক এনজিও কর্মকর্তাসহ তিনজনকে আটক করেছে কোতয়ালী থানার পদেস্কঃগতকাল মঙ্গলবার (৬ এপ্রিল) দুপুরে ওই এনজিও কর্মকর্তাসহ তিনজনের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে বলে জানিয়েছেন কোতয়ালী থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আসাদুজ্জামান। সোমবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে শহরের ঈদগাহ আবাসিক এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়।

দিনাজপুরে গ্রাহকের টাকা আত্মসাৎ

এর আগে তাকে কার্যালয়ে অবরুদ্ধ করে রাখেন ভুক্তভোগী গ্রাহকেরা। গ্রেপ্তার এনজিও কর্মকর্তা দিনাজপুর সদর উপজেলার আউলিয়াপুর গ্রামের মৃত জাহিদ হাসানের ছেলে।

তিনি ব্রিজ অফ লাইট ডেভেলপমেন্ট ফাউন্ডেশনের সভাপতি। এনজিওটির সদস্য সংখ্যা ৪ শতাধিক বলে জানা গেছে। এ বিষয়ে ভুক্তভোগীরা জানান, কয়েকদিন ধরেই এনজিওর মাঠকর্মীরা ফরম পুরণ করছিল ঋণ প্রদান করা হবে এই মর্মে। এই ঋণ দেওয়ার জন্য প্রত্যেকের কাছ থেকে ৫ হাজার থেকে ৫০ হাজার টাকা পর্যন্ত অগ্রিম গ্রহণ করে। পরে তারা জানতে পারেন যে ওই সংগঠনটি মানুষের সঙ্গে প্রতারণা করছে এবং এসব টাকা নিয়ে সোমবার রাতে পালিয়ে যাবে। এই সংবাদে তারা সংগঠনের কর্মকর্তার কার্যালয়ে গিয়ে তাকে অবরুদ্ধ করে পুলিশকে খবর দেয়। পরে পুলিশ গিয়ে ওই কর্মকর্তাকে আটক করে। বিষয়টি নিশ্চিত করে দিনাজপুর কোতয়ালী থানার পরিদর্শক আসাদুজ্জামান বলেন, স্থানীয়দের অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে ওই কর্মকর্তাকে আটক করা হয়েছে। মঙ্গলবার দুপুরে তার বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে এবং তাকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। এই ঘটনায় আরও দুইজনকে আটক করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

আমাদের ফেইসবুক Link : ট্রাস্টনিউজ২৪