বিশ্বজুড়ে তাণ্ডব চালাচ্ছে করোনাভাইরাস। আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। এমন পরিস্থিতিতে করোনার সংক্রমণ রোধে ক্রিসমাস ও নববর্ষের আসন্ন ছুটিতে নতুন করে লকডাউনের ঘোষণা দিয়েছে ইতালি। শুক্রবার দেশটির প্রধানমন্ত্রী জিউসেপ্পে কন্তে এ ঘোষণা দেন।

করোনায় কঠোর লকডাউনে ইতালি

কন্তে বলেন, মহামারী করোনার দ্বিতীয় প্রকোপ ঠেকাতে ইতালি সরকার তাদের প্রচেষ্টা অব্যাহত রেখেছে। আসন্ন ধর্মীয় উৎসব বড়দিন ও নতুন বছর বরণের আয়োজনে যেন নতুন করে করোনা সংক্রমণ না হয় সেজন্য আমরা আবারো সম্পূর্ণ ইতালিকে লালজোনের আওতাভুক্ত করে পুরো ইতালিকে লকডাউনের সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আপনারা ভুলে যাবেন না এটা আমাদের ত্যাগের সময়। আমরা এখন ত্যাগ করবো যাতে পরবর্তী সময়ে আমরা সবাই সুস্থ থেকে আমাদের পরিবারের সাথে মিলিত হতে পারি।

নতুন ঘোষণা অনুযায়ী ২৪ থেকে ২৭ ডিসেম্বর, ৩১ ডিসেম্বর থেকে ৩ জানুয়ারি এবং ৫, ৬ জানুয়ারি অপ্রয়োজনীয় দোকান ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে। এ সময় কর্মক্ষেত্র, হাসপাতাল ও জরুরি প্রয়োজন ছাড়া কেউ বের হতে পারবে না। বন্ধ থাকবে সব ধরনের পানশালা, রেস্তোরাঁ। ২৮ ডিসেম্বর থেকে ৩০ ডিসেম্বর পর্যন্ত লকডাউন একটু শিথিল করে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত বার ও রেস্টুরেন্ট খোলা রাখার অনুমতি রয়েছে। তবে ৩১ তারিখ থেকে পরবর্তী বছরের ৬ জানুয়ারি পর্যন্ত আবারো সম্পূর্ণ লকডাউনের আওতায় থাকবে ইতালি।