ফেনীর ফুলগাজী সদর ইউনিয়নের জয়পুর গ্রামে ১০ বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে নুরুল হুদা (৫২) নামে ওই শিশুর আপন বড় চাচাকে আটক করেছে পুলিশ। সোমবার (১৯ অক্টোবর) ফুলগাজী থানার ওসি তদন্ত মোহাম্মদ আলী জানান, অভিযোগ পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে নুরুল হুদাকে আটক করা হয়েছে। শিশুর ফুফু বাদী হয়ে থানায় মামলা করেন। পরবর্তী কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। শিশুটির ডাক্তারি পরীক্ষা সম্পন্ন করা হবে। অভিযুক্ত আসামিকে আদালতে পাঠানোসহ প্রয়োজনীয় আইনি পদক্ষেপ নেয়া হবে বলে জানান তিনি।

রোববার রাতে তাকে আটক করা হয়। শিশুটি পরশুরাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছে। শিশুটি একাধিকবার ধর্ষণের শিকার হয়েছে বলে চিকিৎসকের মাধ্যমে পুলিশ জানতে পেরেছে। পুলিশ জানায়, ফুলগাজী সদর ইউনিয়নের নুরুদ হুদা তার আপন ভাতিজিকে ধর্ষণ করলে শিশুটি অসুস্থ হয়ে পড়ে। পরবর্তীতে ওই শিশু ঘটনাটি তার ফুফুকে জানায়। শিশুটিকে গোপনে পার্শ্ববর্তী পরশুরাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান তার ফুফু।

সেখানকার চিকিৎসকরা ঘটনা বুঝতে পেরে পুলিশে খবর দেয়। ওই সময় পুলিশ শিশুটির সঙ্গে থাকা ফুফুকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে পুরো ঘটনা খুলে বলেন তিনি। ঘটনা শোনার পর ফুলগাজী থানা-পুলিশ বাড়িতে অভিযান চালিয়ে অভিযুক্তকে আটক করে। পাঁচ বছর আগে ওই শিশুর মায়ের সঙ্গে তার বাবার বিচ্ছেদ হলে তার বাবা সেই থেকে চট্টগ্রামে থাকেন। আর শিশু তার দাদি ও চাচার সঙ্গে বাড়িতে বসবাস করত।