আগামী বছর থেকে বাংলাদেশে তৈরি স্যামসাংয়ের মোবাইল হ্যান্ডসেট বিদেশে রফতানি শুরু হবে বলে জানিয়েছেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। বৃহস্পতিবার (২৪ ডিসেম্বর) রাজধানীর আগারগাঁওয়ে আইসিটি টাওয়ারে ‘আইডিয়াথন’ প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে এ কথা জানান তিনি।

এ সময় ডিজিটাল বাংলাদেশের অগ্রযাত্রার চিত্র তুলে ধরে প্রতিমন্ত্রী বলেন, বর্তমানে ৬০ লাখ মানুষ ডিজিটাল সেবা পাচ্ছেন। দেশে প্রযুক্তিগত অবকাঠামো গড়ে তুলতে নেওয়া হচ্ছে নানা উদ্যোগ। তরুণদের প্রযুক্তি খাতে দক্ষ হিসেবে গড়ে তুলতে দেওয়া হচ্ছে বিভিন্ন প্রশিক্ষণ। যারা স্টার্টআপ হিসেবে আত্মপ্রকাশ করছে। আগামী ২০ বছর পর বাংলাদেশ প্রযুক্তির বিশ্বে নেতৃত্ব দেবে বলেও আশা প্রকাশ করেন জুনাইদ আহমেদ পলক।

বাংলাদেশে তৈরি স্যামসাং মোবাইল

প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, ২০ বছর আগে ফেসবুক স্টার্টআপ ছিল। কিন্তু তারা এখন বিলিয়ন ডলারের প্রতিষ্ঠান। প্রযুক্তি ক্ষেত্রে মাত্র ১০ শতাংশ স্টার্টআপ সফল হয়। ব্যর্থ হয় বাকি ৯০ শতাংশই। তারপরও স্টার্টআপ তৈরিতে প্রশিক্ষণ, অর্থায়নসহ নানা পদক্ষেপ নিয়েছি আমরা। আমাদের পাঠাও, সহজ ডট কম, বিকাশ বিশ্বে সুনাম কুড়িয়েছে। পলক বলেন, প্রযুক্তি খাতে অবকাঠামো তৈরিসহ নানা উদ্যোগ নেওয়ায় স্যামসাংয়ের মতো জায়ান্ট প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশে মোবাইল ফোন তৈরি করছে। আগামী বছর থেকে শুরু হবে রফতানিও।

ডিজিটাল বাংলাদেশের অগ্রযাত্রায় দক্ষিণ কোরিয়া বাংলাদেশের পাশে থাকবে বলে জানান, ঢাকায় নিযুক্ত দক্ষিণ কোরিয়ার রাষ্ট্রদূত লি জ্যাং কিউন। অনুষ্ঠানে, ছবির বাক্স, রক্ষী লিমিটেড ও অ্যান্টি রোবোটিকসসহ পাঁচটি স্টার্টআপকে বিজয়ী হিসেবে ঘোষণা করা হয়। তাদের হাতে ক্রেস্ট তুলে দেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। বিজয়ী স্টার্টআপরা দক্ষিণ কোরিয়ায় ৬ মাসের বিশেষ প্রশিক্ষণ পাবেন।

আমাদের ফেইসবুক Link: ট্রাস্টনিউজ২৪